রাঙামাটিতে বঙ্গবন্ধু-বঙ্গমাতা ফুটবল টুর্নামেন্টে ঘাগড়া সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ের শিরোপা লাভ

স্টাফ রিপোর্টার,হিলবিডিটোয়েন্টিফোর ডটকম

Pic-21-12-14-1

বঙ্গবন্ধু-বঙ্গমাতা গোল্ডকাপ আন্তঃপ্রাইমারী স্কুল প্রতিযোগিতার  জেলা পর্যায়ে রোববার চুড়ান্ত পর্বে কাউখালীর ঘাগড়া সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয় শিরোপা লাভ করেছে। এতে  কাউখালী ঘাগড়া সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয় ৪-১ গোলে সদর উপজেলা কাটাছড়ি সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়কে পরাজিত করে।

রাঙামাটি চিংহ্লামং মারী স্টেডিয়ামে অনুষ্ঠিত সমাপনি ও পুরষ্কার বিতরনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ছিলেন রাঙামাটি পার্বত্য জেলা পরিষদ চেয়ারম্যান নিখিল কুমার চাকমা। জেলা প্রাথমিক শিক্ষা কর্মকর্তা একেএম রিয়াজ উদ্দিন আহমেদের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি ছিলেন রাঙামাটি প্রেস ক্লাবের সভাপতি ও জেলা ক্রীড়া সংস্থার সহ-সভাপতি সুমীল কান্তি দে, শফিকুল ইসলাম মুন্না, সাধারণ সম্পাদক বররু দেওয়ান, জেলা ক্রীড়া কর্মকর্তা স্বপন কিশোর চাকমা ও তরুন খেলোয়াড় শাহ এমরান রোকন।

অনুষ্ঠিত খেলায় লংগদু উপজেলার তিনটিলা সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ের ছাত্রীরা ৭-৬ গোলে রাজস্থলী বাঙ্গালহালিয়া বিদ্যালয়কে রানার্স-আপ এবং কাউখালী ঘাগড়া সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ের ছাত্রিরা ৪-১ গোলে সদর উপজেলা কাটাছড়ি সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়কে পরাজিত করে জেলায় চ্যাম্পিয়ান হওয়ার গৌরব অর্জন করেছে।  আলোচনা শেষে প্রধান অতিথি চ্যাম্পিয়ন ও রানার্সআপ দলের মাঝে  ট্রফি বিতরণ করেন।

রাঙামাটি পার্বত্য জেলা পরিষদ চেয়ারম্যান নিখিল কুমার চাকমা বলেন, বঙ্গবন্ধুর আদর্শকে মনে প্রাণে লালন করে দেশ গড়ার কাজে এগিয়ে যেতে হবে। কারণ নতুন প্রজন্মরাই আগামী দেশ পরিচালনার হাতিয়ার দেশের কল্যাণে কাজ করলে জাতি তোমাদের মাঝেই খুঁজে পাবে জাতির জনক বঙ্গবন্ধুকে। তিনি বলেন, জাতির পিতার নামে যে খেলাধুলা হচ্ছে, তাতে এ প্রজন্মের খেলোয়াড় ও তরুণরা জাতির পিতাকে চিনতে ও জানতে পারছে এবং এ দেশের জন্য তাঁর যে ত্যাগ ও সংগ্রামের ইতিহাস রয়েছে তারা তা শিখে নিজেদের জীবন গড়তে কাজে লাগাতে পারবে।

পরিষদ চেয়ারম্যান বলেন, এ খেলার মধ্য দিয়ে আগামী দিনের জাতীয় দলের খেলোড়ার সৃষ্টি করতে হবে। তাই এ জেলায় ভালো ক্যাম্পংয়ের মাধ্যমে ভালো খেলোয়াড় গড়ে তুলতে হবে। তিনি বিভাগীয় পর্যায়ে খেলার জন্য আগামী ৫দিনের প্রশিক্ষনের সব খরচের দায়িত্ব পরিষদ হতে বহন করার প্রতিশ্র“তি ব্যক্ত করেন।

–হিলবিডি২৪/সম্পাদনা/সিআর.

Print Friendly