বান্দরবানে মাতাল স্বামীর দায়ের কোপে স্ত্রীর হাত বিচ্ছিন্ন

বান্দরবান প্রতিনিধি, হিলবিডিটোয়েন্টিফোর ডটকম

h5

বান্দরবানের থানছি উপজেলার বলিপাড়া ইউনিয়ানে মদ্যপ স্বামীর দায়ের কোপের  স্ত্ররি হাতের কব্জি বিচ্ছিন্ন হওয়ার ঘটনা ঘটেছে।

জানা গেছে, রোববার থানছি উপজেলার বলি পাড়া ইউনিয়ানের মনাই পাড়ার মদ্যপ স্বামী সাইংওই পাহাড়ী মদ খেয়ে দারালো একটি দা নিয়ে হত্যার উদ্দেশ্যে তার স্ত্রী মেমুসাং(৪৫)  হাতে জোরে কোপ দিলে তার হাতের কব্জি সম্পুর্ণ দেহ থেকে বিচ্ছিন্ন হয়ে যায়। এই সময় স্থানীয় জনগন স্বামী কে আটক করে গনধোলাই দিয়ে পুলিশে সোপর্দ করে। বর্তমানে তাকে হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে এবং তার অবস্থা আশংকা জনক। এ ঘটনায় থানছি থানায় একটি মামলা রুজু করা হয়েছে।

বলিপাড়ার চেয়ারম্যান বাসইচিং জানান সাইংওই একজন মায়ামারের নাগরিক। সে মদ্যপ অবস্থায় তার স্ক্রীকে হত্যা উদ্দেশে আক্রমন করে দারালো দায়ের কোপের আঘাতে  তার ডান হাত দেহ থেকে হাত বিচ্ছিন্ন করে ফেলে।

অপরদিকে লামা উপজেলার আজিজ নগরে এক শিশু  কন্যা রান্না করা নিয়ে মায়ের সাথে অভিমান করে আতœ হত্যা করেছে। শিশু কন্যাটির নাম মরজিনা বেগম (১৩)। তার পিতার নাম আকবদুল মজিদ। সে লামা উপজেলা আজিজ নগর ইউনয়ানের দুণœার চর এলাকার বাসিন্দা।

আজিজ নগর ইউনিয়ানের চেয়ারম্যান নাজমুল ইসলাম জানান আতœহত্যাকারী মরজিনার সাথে তার মায়ের রান্না করার ব্যপারে মা বকাবকি করলে অভিমান করে ঘরে থাকা কিটনাশক ঐষধ সেবন করে। এতে তার মৃত্যু হয়। এ ঘটনায় লামা থানায় একটি অপমৃত্যু মামলা দায়ের করা হয়েছে।

–হিলবিডি২৪/সম্পাদনা/সিআর.

Print Friendly