বাঘাইছড়িতে দুই টিলায় জারীকৃত ১৪৪ ধারা দীর্ঘ ৯মাস পর প্রত্যাহার করেছে স্থানীয় প্রশাসন

বাঘাইছড়ি প্রতিনিধি,হিলবিডিটোয়েন্টিফোর ডটকম

2 tils 1

রাঙামাটির বাঘাইছড়ি উপজেলার দুইটিলা নামক ¯হানে বৌদ্ধ বিহার ও বৌদ্ধ মূর্তি ¯হাপনকে কেন্দ্র করে সৃষ্ঠ জটিলতায় প্রশাসনের জারিকৃত ১৪৪ ধারা দীর্ঘ ৯মাস পর রোববার প্রত্যাহার করা হয়েছে। গত বছর ৫ এপ্রিল এ দুই টিলা নামক স্থানে স্থানীয় উপজেলা প্রশাসন এ ১৪৪ ধারা জারি করেন।

 জানা গেছে, উপজেলার রুপকারী  ইউনিয়নের দুইটিলা নামক ¯হানে বৌদ্ধ বিহার ও বৌদ্ধ মূর্তি ¯হাপনকে কেন্দ্র করে সৃষ্ঠ জটিলতা নিরসনের লক্ষে রোববার সকালে অজল চুগ বনবিহার প্রাঙ্গনে অালোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়। বিহার পরিচালনা কমিটির সভাপতি অরুনা দেওয়ানের সভাপতিত্বে বৈঠকে প্রধান অতিথি ছিলেন বিজিবির মারিশ্যা জোনের ভারপ্রাপ্ত অধিনায়ক মেজর মোঃ লোকমান সরওয়ার । এসময় বিশেষ অতিথি ছিলেন বাঘাইহাট সেনা জোনের উপ-অধিনায়ক মেজর মোঃ সেলিম, উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা  সুমন চৌধুরী, উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান দিপ্তীমান চাকমা, বাঘাইছড়ি থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা এসএম আজিজুল হক, বাঘাইছড়ি থানার উপ-পরিদর্শক মোঃ জাকির হোসেন ফকির, বাঘাইছড়ি প্রেস ক্লাবের সভাপতি দিলীপ কুমার দাশ, বঙ্গলতলী ইউপি চেয়ারম্যান তারুসি চাকমা, মারিশ্যা ইউপি চেয়ারম্যান তন্টুমনি চাকমা।

সভায়, গত বছর ৫ এপ্রিল দুই টিলা নামক স্থানে বৌদ্ধ বিহার ও বৌদ্ধ মূর্তি ¯হাপনকে কেন্দ্র করে সৃষ্ঠ জটিলতার কারণে জারিকৃত ১৪৪ ধারা প্রত্যাহার সিদ্ধান্ত গ্রহন করা হয়।  সভার মাধ্যমে দুইটিলা নামক ¯হানে থাকা বৌদ্ধ মূর্তিটি অজল চুগ বন বিহার পরিচালনা কমিটির কাছে হস্তান্তর করা হয়। পরে বিহার পরিচালনা কমিটি ১২ কিলোমিটারের গ্যাসফিল্ডে নামক  ¯হানে নব প্রতিষ্ঠিত অজল চুগ বনবিহারে মুর্তিটি স্থাপন করেন। সভায় বিজিবি মারিশ্যা জোনের পক্ষ থেকে  বিহার উন্নয়নে বিশ হাজার টাকা অনুদান দেয়া হয়েছে।

–হিলবিডি২৪/সম্পাদনা/সিআর.

Print Friendly