অসহযোগ আন্দোলন প্রস্তুতির আহ্বানের মধ্য দিয়ে রাঙামাটিতে পার্বত্য চুক্তির ১৭ তম বর্ষপূর্তি পালন

স্টাফ রিপোর্টার,হিলবিডিটোয়েন্টিফোর ডটকম

01

পার্বত্য চুক্তি বাস্তবায়ন নিয়ে একদিকে হতাশা ও ক্ষোভ অন্যদিকে আগামী ৩০ এপ্রিলের মধ্যে সরকারকে পার্বত্য চুক্তি বাস্তবায়নে বাধ্য করতে সন্তু লারমার ঘোষিত অসহযোগ আন্দোলনের জোরালো প্রস্তুতির গ্রহনের আহ্বানের মধ্য দিয়ে মঙ্গলবার রাঙামাটিতে পার্বত্য চুক্তির ১৭তম বর্ষপূতি পালিত হয়েছে।

জেলা জিমনেসিয়াম চত্বরে পার্বত্য চট্টগ্রাম জনসংহতি সমিতি জেলা শাখার উদ্যোগে আয়োজিত বিশাল গণসমাবেশে প্রধান অতিথি ছিলেন জনসংহতি সমিতির কেন্দ্রীয় সাধারন সম্পাদক প্রণতি বিকাশ চাকমা। জনসংহতি সমিতির জেলা সভাপতি গুনেন্দু বিকাশ চাকমার সভাপতিত্বে সমাবেশে বক্তব্য দেন চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের সমাজতত্ব বিভাগের অধ্যাপক মোঃমনিরজ্জিামান মঈন, চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের গনযোগাযোগ বিভাগের সহযোগী অধ্যাপক আলী আকবর চৌধুরী,জনসংহতি সমিতির কেন্দ্রীয় তথ্য ও প্রচার সম্পাদক মঙ্গল কুমার চাকমা, আদিবাসী ফোরামের পার্বত্যাঞ্চল সভাপতি প্রকৃতি রঞ্জন চাকমা, মহিলা সমিতির জেলা শাখার সভাপতি সুপ্রভা চাকমা, জনসংহতি সমিতির নেতা উদয়ন ত্রিপুরা, যুব সমিতির জেলা শাখার সভাপতি সুনির্মল দেওয়ান, পিসিপির জেলা শাখার সভাপতি বাচ্চু চাকমা, হিলউইমেন্স ফেডারেশন নেত্রী রিমিতা চাকমা। স্বাগত বক্তব্যে দেন জনসংহতি সমিতির নেতা আনন্দ জ্যোতি চাকমা। সমাবেশ জনসংহতি সমিতির অঙ্গ সংগঠনের নেতাকর্মীরা ছাড়াও কয়েক হাজার সাধারন আদিবাসী নারী-পুরুষ যোগদান করেন।

02

সমাবেশে শেষে একটি বিশাল র‌্যালী জিনেসিয়াম চত্বর থেকে শুরু হয়ে বনরুপা হয়ে শহর প্রধান সড়ক প্রদক্ষিণ করে আবারও জিমনেসিয়াম চত্বরে গিয়ে শেষ হয়।

সমাবেশে বক্তারা অভিযোগ করেছেন, সরকার পার্বত্য চুক্তি বাস্তবায়ন নিয়ে মিথ্যা আশ্বাস দিয়ে পার্বত্যবাসীর সাথে প্রতারনা করে যাচ্ছে। পার্বত্য চুক্তির ১৭ বছরেও মৌলিক বিষয়গুলো বাস্তবায়ন না করে চুক্তি লংঘন ও নানান ষড়যন্ত্র চালিয়ে যাচ্ছে। পার্বত্য চুক্তি বাস্তবায়ন নিয়ে পার্বত্য অপেক্ষার ধৈর্য্য হারিয়ে ফেলেছে। তাই জনসংহতি সমিতি পার্বত্য জনগণকে সাথে নিয়ে চুক্তি বাস্তবায়নে জোরালো আন্দোলনে নামতে বাধ্য হবে। বক্তারা আরও অভিযোগ করেন চুক্তি বিরোধী ইউপিডিএফকে মদদ দিয়ে চুক্তি বিরোধী তৎপরতায় ইন্ধন দিচ্ছে। পার্বত্য চুক্তি বাস্তবায়নে জনসংহতি সমিতি জনগনকে সাথে নিয়ে এসব চক্রান্ত মোকাবেলা করবে।

অপরদিকে চুক্তির বর্ষ পূর্তি উপলক্ষে মঙ্গলবার বিকালে জেলা আওয়ামীলীগের উদ্যোগে সংগঠনের জেলা কার্যালয়ে আলোচনা সভার আয়োজন করা হয়। এতে জেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি ও সাবেক প্রতিমন্ত্রী দীপংকর তালুকদারের সভাপতিত্বে অন্যান্যর মধ্যে বক্তব্যে দেন রাঙামাটি পার্বত্য জেলা পরিষদ চেয়ারম্যান নিখিল কুমার চাকমা, জেলা আওয়ামীলীগের সহ-সভাপতি মাহাবুবুর রহমান, সহ-সভাপতি রুহুল আমীন, সাধারন সম্পাদক হাজী মুছা মাতব্বর, যুগ্ন সম্পাদক সন্তোষ কুমার চাকমা প্রমূখ।

আলোচনা সভায় আওয়ামীলীগ নেতৃবৃন্দ বলেন, সরকার পার্বত্য চুক্তি বাস্তবায়নে অত্যন্ত আন্তরিক। কিন্তু চুক্তি স্বাক্ষরকারী জনসংহতি সমিতির পক্ষ থেকে চুক্তি বাস্তবায়নে সহাযোগিতায় এগিয়ে আসছে না। কাদাচোরাচোরি না করে চুক্তি বাস্তবায়নে সহযোগিতায় এগিয়ে আসার জন্য জনসংহতি সমিতির প্রতি আহ্বান জানান নেতৃব্ন্দৃ।
–হিলবিডি২৪/সম্পাদনা/সিআর.

Print Friendly